কখন সহবাস করলে মেয়েরা বেশি তৃপ্তি পায়? মেয়েদের শরীর নিয়ে কিছু কথা

কখন সহবাস করলে মেয়েরা বেশি তৃপ্তি পায়? মেয়েদের শরীর নিয়ে কিছু কথা ও সহবাস সঙ্গমের সময় 



মেয়েরা কখন সহবাস করলে বেশি তৃপ্তি পায় তা কি সময় ধরে বলা যায়?
আমি জানিনা।

তবে কখন  মেয়েরা সহবাস করতে চাই তা নিয়ে কিছুটা জানি। এই পোস্টে ছেলে মেয়েদের সঙ্গমের সময় এর একটা চার্ট টাইপ বিবরন পাবেন লেখার শেষের দিকে।

আর শুরুতে পাবেন মেয়েদের সঙ্গম এর ইচ্ছার সময় নিয়ে আলোচনা।

শুরু করা যাক নারীদের শারিরিক চাহিদা নিয়ে।


১। সারাদিনের কাজ শেষে বাচ্চাদের ঘুম পাড়িয়ে, শশুর শাশুড়ির দায়িত্ব শেষ করে কোন মেয়ের মন চাইবে না রাতে একটু স্বামীর বুকে আনন্দের আলিঙ্গন পেতে?

হ্যাঁ রাতে মেয়েরা সহবাস করতে অন্য সময়ের তুলনায় বেশি আগ্রহি থাকে।

অনলাইনে পেলাম রাতে নাকি ছেলেদের আগ্রহ কম থাকে! তারা কি থেকে এমন কথা বলছে জানিনা। আমার মনে হয় ছেলেরাও রাতে স্ত্রীর সাথে মিলনে অনেক বেশিইই আগ্রহি থাকে।

মেয়েদের শরীর নিয়ে কিছু কথা । 

২। মেয়েদের পিরিয়ড এর সাথে মেয়েদের সহবাস এর ইচ্ছার একটা হিসাব আছে। মেয়েদের মাসিক শেষ হলে নারীরা সহবাসের প্রতি বেশি টান অনুভব করে বলে জানি।


৩। স্বামী থেকে বেশিদিন দূরে থাকলে। ছেলেরা যেমন স্ত্রী থেকে দূরে থাকলে সঙ্গমের জন্য উদগ্রীব থাকে তেমন স্বাভাবিক ভাবেই মেয়েরাও উদগ্রীব থাকে। তবে ছেলেদের মত প্রকাশ করেনা মেবি!


৪। বৃষ্টির সময়। এই সময় ছেলে মেয়ে উভয় ই সঙ্গির সাথে মিশে জেতে চাই। হোক ছেলে বা মেয়ে।
বাইরে বৃষ্টির শব্দ, ঠাণ্ডা ঠাণ্ডা হাওয়া এর মধ্যে কার না মন চাই সঙ্গির উষ্ণ আলিঙ্গন পেতে?


৫। জানিনা আর। এবার নিচের অংশ পড়ে দেখতে পারেন। এখানে নেট থেকে পাওয়া সময়ের বিবরন আছে। সকাল বিকাল ভোর ৫টা না বিকাল ৫ টা এসব জানতে পারবেন।

মেয়েরা কখন সেক্স বা সহবাস করতে আগ্রহি ও বেশি  তৃপ্তি পায়? 


ভোর পাঁচটা :- যখন একজন পুরুষ ঘুম থেকে ওঠে তখন তার টে’সটোসটেরনের মাত্রা সর্বোচ্চ পর্যায়ে থাকে। এসময় এটির মাত্রা থাকে ২৫-৩০ শতাংশের মধ্যে। এটি দিনের অন্য যেকোন সময়ের চেয়ে বেশি।

সকাল ছয়টা :- ভাল ঘুম উত্তেজনা বৃদ্ধির একটি কারণ। দীর্ঘ সময় গভীরভাবে একটি ঘুম দিলে টেসটোসটেরনের মাত্রা বৃদ্ধি পায়।  ৫ ঘণ্টার বেশি ঘুম পুরুষের টে’সটোসটের মাত্রা অতিরিক্ত ১৫ শতাংশ বৃদ্ধি করে।

দুপুর বারোটা :- এসময় সামনে দিয়ে সুন্দরী রমণী হেঁটে বেড়ালেও কোনো ধরনের যৌ’ন প্র’ণোদনা তৈরি হয় না। এ সময় হয়ত কাউকে দেখলে মনের মধ্যে ভালো লাগা তৈরি হয়। এসময় সে’ক্স হর’মোন বাড়তে অনেক সময় নেয়। 



সন্ধ্যা ছয়টা :- এই সময়ে নারীদের টে’সটোস’টেরনের মাত্রা বাড়তে শুরু করে। অন্যদিকে পুরুষদের টে’সটোস’টের মাত্রা কমতে থাকে। তবে একটি গবেষণায় দেখা গেছে, জিম করার পর নারী ও পুরুষ উভয়েরই কামশ’ক্তি বাড়ে। 


সন্ধ্যা সাতটা :- জাপানের নারা বিশ্ববিদ্যালয়ের একটি গবেষণায় দেখা গেছে, এসময় নারীদের স’হবাস হ’রমোন বৃদ্ধি করে। কিন্তু পুরুষের ক্ষেত্রে তেমন কোনো প্র’ভাব পড়ে না।

রাত আটটা :-  ফাউল লাগছে এই অংশ তাই মুছে দিলাম। আপনাদের সময় নষ্ট হওয়া থেকে বাচাই দিলাম।


রাত নয়টা :- এসময় নারীদের সে’ক্স হর’মোন সাধারণত বৃদ্ধি পায়। তবে যদি নারীরা মনে করে যে তাকে দেখতে খুব খারাপ দেখাচ্ছে তাহলে সে স’হবাস করতে তেমন আগ্রহী হয় না। 


রাত দশটা :- এসময় যদিও পুরুষদের টে’সটোস’টেরনের মাত্রা কম থাকে তারপরও তারা সঙ্গী’নির সাথে স’হবাস করতে চায়। এসময় নারীদেরও যৌ’ন চা’হিদা বেশি থাকে।

সকাল সাতটা :- যখন পুরুষরা সকালে ঘুম থেকে ওঠে তখন তাদের স’হবাস হরমোনের মাত্রা সর্বোচ্চ পর্যায়ে থাকে। এসময় নারীদের সে’ক্স হ’রমোনের মাত্রা সর্বনিম্ন পর্যায়ে থাকে। 

সকাল আটটা :- এসময় নারী ও পুরুষ উভয়ই দিনের কাজের জন্যে ব্যস্ত হয়ে পড়ে। তাদের স্ট্রে’স হরমোন করটিসলের পরিমাণ বাড়তে থাকে।
Powered by Blogger.