বাগান - বাগান করার ০৮ টি উপকারিতা এবং কীভাবে বাগান করবেন তার কিছু কথা

 বাগান করার ০৮ টি উপকারিতা এবং কীভাবে  ছাদে বা ব্যালকোনি তে বাগান  করবেন তার কিছু টিপস

বাগানের উপকারিতা

০১। শরীর ঠিক রাখতে বাড়তি ব্যায়াম করতে হবে না। বাগান করতে আপনার যে ক্যালোরি পুড়বে তাই আপনার জন্য যথেষ্ট ।
আপনি যদি বাগানে ১ ঘণ্টা কাজ  করেন তাহলে ১ ঘণ্টা হাটার চেয়ে বেশি ক্যালোরি খরচ হয়।
বুঝতেই পারছেন বাড়তি ক্যালোরি নিয়ে আর চিন্তা করা লাগবে না বাগান করলে।

০২। হাড় শক্ত হয়। বাগানে কাজ করতে হলে রোদে থাকতে হবে আর রোদে থাকলে হাড় শক্ত হবে।

রোদ আমাদের দেহে ভিটামিন ডি তৈরি করে।
তবে খেয়াল রাখবেন রোদে পুড়ে আবার ত্বক নষ্ট করে ফেইলেন না।

বাগান - বাগান করার ০৮ টি উপকারিতা এবং কীভাবে বাগান করবেন তার কিছু কথা

→  বাগানের পিকচার দেখতে ক্লিক করুন

বাগানের উপকারিতা

০৩। রক্তচাপ কমায়। বাগান এর ঘাস পরিস্কার করা, গাছের পাতা পরিস্কার করা ইত্যাদি বাগান ভিত্তিক কাজ করার মাধ্যমে আপনার উচ্চ রক্তচাপ নিয়ন্ত্রনে থাকবে।  খুব বেশি না ৩০/৪০ মিনিট করে কাজ করলেই দেখবেন ।

০৪। তাজা খাবার। নিজের বাগান নিজের চাষ তাই বাগান থেকে যেসব খাবার খাবেন তাও হবে নিজের  মত। তাজা এবং ভেজালহীন খাবার।
আর আপনি যদি ফুলের বাগান করেন তাহলে তো তাজা তাজা ফুল দেখেই মন ভরে যাওয়ার কথা।

০৫।  স্ট্রেস কমাতে সাহায্য । এখন তো আমাদের অন্যতম সমস্যা স্ট্রেস। স্ট্রেস কমাতে বাগান করতে পারেন। আসলে আমার মনে হয় যেকোনো শখের কাজ করলেই স্ট্রেস কিছুটা কমে যাই। বাগান করলে সবুজের কাছাকাছি থাকাই স্ট্রেস আরো বেশি কমে।
তাই স্ট্রেস দূর করতে গাছ কে সময় দিন, প্রেম ঝেড়ে ফেলুন।

কিভাবে বাগান  করবেন

০৬। মুড ভালো রাখে। স্ট্রেস দূর করার মতই। আপনি বাগান করেন, গাছের যত্ন নিন এরপর কোন গাছের নতুন একটা পাতা জন্মাতে দেখলেও আপনার চরম মন খারাপও ভাল হয়ে যাবে। অন্তত ভালো হয়ে যাওয়ার কথা।
যারা বাগান করে বা করছে তারা জানেন এটা।

→  ফুলের ছবি  দেখতে ক্লিক করুন

০৭। গাছ সেল। আপনি যদি ভালো মানের বাগানি হোন তাহলে আপনার বাগানের বিভিন্ন গাছ সেল করতে পারেন। ফেসবুক এ এখন কিছু বাগান রিলেটেড গ্রুপ আছে সেগুলো তে গাছ সেল বা আদান প্রদান হয়।
গাছ বিক্রি করুন আবার সেই বিক্রির টাকা দিয়ে নিজের জন্য নতুন গাছ কিনুন । কিংবা আরেকজনের সাথে গাছ চেঞ্জ করুন।

সাজানো বাগান

০৮। বাগান ব্লগ। বাগানের শুরু থেকে শেষ সব কিছু ভিডিও করে বাগান Vlog করতে পারেন আবার বাগান সম্পর্কে ভালো ধারনা থাকলে ব্লগে লিখেও পোস্ট করতে পারেন।


ছাদে বাগান 


ধারন ক্ষমতা ঃ
 আপনার ছাদে বাগান করার আগে জেনে নিতে হবে ছাদের ধারন ক্ষমতা কত টুকু।
অনেকেই এটাকে হেলা ফেলা মনে করে কিন্তু লং টার্মে আপনার ছাদের ক্ষতির কারন হতে পারে অপরিকল্পিত বাগান।
তাই কেমন বাগান করবেন, কেমন জায়গা, ওজন ইত্যাদি বিষয় ভালো ভাবে বুঝে তারপর বাগানের দিকে আগান।

রোদ ঃ 
গাছের জন্য রোদ অপরিহার্য এটা বলার অপেক্ষা রাখেনা। একেক রকম গাছের রোদের প্রয়োজন একেক রকম। কোন কোন গাছ অল্প রোদে জন্মে আবার কোন কোন গাছ এর জন্য বেশি রোদ এর প্রয়োজন হয়।
ছাদে কোন পাশে কতক্ষন রোদ থাকে এটা হিসাব  করে ঠিক করুন কেমন গাছের বাগান করবেন।

বাতাস ঃ 
ছাদে সব সময় বাতাস থাকবে এটা স্বাভাবিক। অতিরিক্ত বাতাসের ফলে মাটির আদ্রতা কমে জেতে পারে যা গাছের জন্য ভালো হবে না। তাছাড়া বেশি জোরে বাতাস হলে গাছ নুয়ে পড়তে পারে এটাও আপনার বাগানের জন্য খারাপ।
তাই বেশি বাতাস সামলাতে বেড়া দিতে পারেন।
Powered by Blogger.