ভালোবাসার কষ্টের লেখা ছবি পিকচার ফটো ডাউনলোড | বাংলা লেখা আবেগের ছবি ইমেজ ২০২২ | Koster Pics Download 2022

ভালোবাসার কষ্টের লেখা ছবি পিকচার ফটো ডাউনলোড | বাংলা লেখা আবেগের ছবি ইমেজ ২০২২

জীবনে চলতে চলতে কত আনন্দ দুঃখের স্মৃতি ই না আমাদের মনে বাসা বাধে। সব ঘটনা সব সময় মনে না  পড়লেও মাঝে মাঝে উকি ঝুকি দেয়, যেমন ফেলে চলে আসা স্কুলের ক্লাস ৯/১০ এর সময় কিংবা চাকরী জীবনের আগে কিছুটা ফ্রি সময়।
  • ভালবাসার কষ্টের পিকচার
  • বাংলা মন খারাপের ছবি
  • আবেগের লেখা ছবি পিকচার
  • কষ্টের ছবি ২০২২
ভালোবাসার কষ্টের লেখা ছবি

ভালোবাসার কষ্টের লেখা ছবি

ভালোবাসার কষ্টের লেখা ছবি


ভালোবাসার কষ্টের লেখা ছবি ২০২০


বলা হয় অতিত সব সময় ই মন খারাপ এর। কেননা অতীতে এর কোন ভালো স্মৃতি মনে পড়লে আফসোস হবে " ইস সময় টা চলে গেছে, আর ফিরে পাবো না"

আবার অতীতের কোন খারাপ ঘটনা মনে পড়লেও ঐ খারাপ ঘটনার জন্য মন খারাপ হবে। দুঃখ লাগবে।

বাংলা লেখা আবেগের ছবি

বাংলা লেখা আবেগের ছবি

এটাই স্বাভাবিক। তাই মন খারাপের দুঃখ বিলাস না  করে বরং নিজেকে নিয়ে ভাবুন। ইহকাল পরকাল নিয়ে ভাবুন। দেখবেন নিজেকে নিয়ে ভাবলে অনন্যার চিন্তায় আবেগে দুঃখ লাগবে না। লাগার সুযোগ থাকেনা!!! 

বাংলা লেখা আবেগের ছবি

বাংলা লেখা আবেগের ছবি


এই খানের ছবি গুলো আইজি ও অন্যান্য সাইট থেকে কালেক্টেড। ছবিতে ক্রেডিট আছে অনেক গুলোর। অনেক ছবি কোনটা কার ঠিক বুঝা কঠিন তাই আলাদা ক্রেডিট দেওয়া যাচ্ছে না। সরি।


বাংলা কষ্টের ছবি পিকচার ২০২২





ভালোবাসা সব সময় আনন্দের হয় না। অনেক সময় ভাল বাসা কষ্টের কারন হয় কিন্তু এই কষ্ট মেনে নেওয়া যায় যদি ভালবাসা হালাল হয় মানে স্বামী স্ত্রী জন্য হয়। কেননা এখন বফ গফের ডজন ডজন প্রেমের ভালবাসার নেকামি দেখে দেখে বিরক্ত লাগে!! ১০ জনের সাথে প্রেম করে ব্রেকাপ করে আবার বলে ১০ জঙ্কেই নাকি পবিত্র ভালবাসা বাসে! আইরে ভালবাসা!!!! 


কষ্টের লেখা ছবি পিকচার


ভালবাসার আবেগ থেকে একটু বাস্তবতার কথা চিন্তা করি?


"১৯৯৮ সালে Natascha Kampusch নামে অস্ট্রিয়ান এক মেয়েকে অপহরণ করা হয়। বহুদিন তাকে জিম্মি করে রাখা হয়। টানা ৮ বছর। সে ৮ বছর পর ২০০৬ সালে একদিন পালিয়ে যায়। তাকে উদ্ধার করা হয়। মজার বিষয়, পুলিশ জানিয়েছে যখন নাতাশাকে জানানো হয় একদিন যে তার অপহরণকারী মারা গেছে,সে প্রচুর কান্না শুরু করে। এমনকি সে অপহরণকারীর মৃতদেহ রাখা মর্গে তার সম্মানে একটা ক্যান্ডেলও জ্বালায়। নাতাশা তাকে নিয়ে নির্মিত একটি ডকুমেন্টারিতে অপহরণকারীর জন্য নিজের সমবেদনা প্রকাশ করে জানায় ,সেই লোকটার জন্য তার খুব খারাপ লাগে।"

আসলে Natascha Kampusch একটা মানসিক ডিসঅর্ডার এ আক্রান্ত ছিল বলে ধারণা করা হয়। যাকে বলে Stockholm Syndrome। এই রোগে আক্রান্ত ব্যক্তি একটা সময় নিজের অপহরণকারীর প্রেমে পড়ে যায়।অপহরণকারীর প্রতি ভিক্টিম এর মায়া লাগা শুরু হয়।

কিন্তু কথা সে টা না। কথা হল,আমার মাঝে মাঝে একটু প্রশ্ন জাগে,
যারা আমাদের মত তৃতীয় বিশ্বে বসবাস করে,তৃতীয় বিশ্বে পশ্চিমা সভ্যতার প্রতিনিয়ত আধুনিক সাম্রাজ্যবাদী লুটপাট দেখেও তাদের প্রতি নিজেদের অর্গাজমিক অনুভূতি দেখান তারাও কি সেই Stockholm Syndrome এ আক্রান্ত ?
- Rakayet Rafi


কষ্টের লেখা ছবি পিকচার

এই পোস্ট দেখে আপনাদের মন খারাপ বৃদ্ধি পেলে বা কষ্ট লাগলে আমি দায়ি না। আপনারায় সার্চ দিয়ে এসেছেন!

আমার পক্ষ থেকে সাজেশন থাকবে অজু করে স্থির মনে দোয়া করুন আল্লাহ্‌র কাছে।
কেনো মন খারাপ কিসের কষ্ট সব খুলে দোয়া করুন। ইন শা আল্লাহ্‌ দেখবেন দোয়া শেষে হালকা ফিল করছেন। 



কষ্টের লেখা ছবি পিকচার


কষ্টের লেখা ছবি পিকচার

কষ্টের ফটো 

কষ্টের লেখা ছবি পিকচার










মন খারাপের ছবি ২০২২










বাংলা আবেগের ছবি ডাউনলোড

























































প্রেমের দুঃখের কথা পিকচার 






Bangla Koster Pics Download 2020



















প্রেম ভালবাসার কষ্টের লেখা ছবি নতুন 



























Powered by Blogger.