Bangla SEO Analysis | Google core Update May 2020 | Website Page Visitors Bangla Analysis

Bangla SEO Analysis | Google core Update May 2020 | Website Page Visitors Bangla Analysis

শুরুতে বলি, এইটা আব্দুল আওয়াল ভাই এর লেখা পোস্ট যা তিনি তাদের গ্রুপে পোস্ট করছিলেন।

গুগল আপডেট এর পর বিভিন্ন সাইটের অবস্থা জানতে বা বুঝতে অন্যদের সাহায্য করবে বলে আমি করছি। আপনারাও দেখতে পারেন। 

  1. on page seo bangla
  2. seo expert website
  3. seo bangla tutorial 2020
  4. seo expert in bangladesh
  5. seo income in bangladesh


আমার এনালাইটিক্স এ থাকা কিছু সাইটের পরিসংখ্যান


১। সাইটটা একজন পাবলিক সেলিব্রিটির । উনার বেশ কিছু ফলোয়ার আছে । উনি নিজে মাঝে মাঝে লিখেন ।
এসইও বলতে উনি কিছু বুঝেন না । জাস্ট নিজের শখের বসেই লিখেন । ফেসবুকে শেয়ার দেন । কোন ব্যকলিংক নাই একদম ই । প্রচুর সোশ্যাল সিগন্যাল আছে । ভিজিটর ড্রপ হইছে ২৬ % এর মত

২. এই সাইটটার কন্টেন্ট বেশ কোয়ালিটিফুল । ইন্টারন্যাশনাল ভিজিটর প্রচুর ছিল। আর প্রচুর লো কম্পিটিটিভ কিওয়ার্ড রেংক করে ছিল । আপডেটের পর ভিজিটর ৭ ভাগের এক ভাগ। আগে প্রতিদিন ১০ কে ভিজিটর থাকত। এখন সেটাতে ভিজিটর ১৫০০ এর মত । কোন ব্যাকলিংক নাই ।

৩. ই কমার্স টাইপ সাইট । কিছু ব্যাকলিংক আছে । তবে সেগুলা খুব বেশি স্ট্রং কিছু না । ভিজিটর ১০% রাইজ করছে । কন্টেন্ট কোয়ালিটি এভারেজের চেয়েও খারাপ ।

৪. এমাজনের হোম ইম্প্রুভমেন্ট নিশের একটা সাইট । আপডেটের আগে ভিজিটর ছিল ডেইলি ১.৮ কে থেকে ২ কে । এখন সেটা ১.৫ কের মত । বেশ ভাল ব্যকলিংক আছে । অনেক গুলা গেস্ট পোষ্ট করা হইছে । এংকর ভেরিয়েশন থেকে শুরু করে সব কিছু প্রোপারলি মেইন্টেইন করা হইছে ।

৫. ইনফোর মেটিভ সাইট । ডোমেইন টা অনেক পুরাতন । এক্সপায়ার্ড ডোমেইন্টা কিনার মুহুর্তে প্রায় ২২ কে কোয়ালিটি ব্যকলিংক ছিল । নতুন করে কন্টেন্ট কিছু দেওয়া হইছিল বাট এমনিতেই তেমন কোন কাজ করা হয় নি । ডেইলি ১৪০০ এর মত ভিজিটর ছিল । আপডেটের পর ৬০০ এর মত হইছে ।

৬. প্রায় ৭ বছর ধরে ডোমেইন্টা রানিং । গত আপডেটে মানে এর আগেরটাতে হুট করে ডাউন হয়ে যায় । কন্টেন্ট সব এভার গ্রীন । মাল্টি নিশের সাইট। মান্থলি ১৫০০ ডলার ইঙ্কাম দেওয়া সাইট গত অক্টোবরের লাস্টে থেকে ডাউন হতে শুরু করে।

 এই আপডেটে মোটামুটি ৪০-৫০% ভিজিটর বেড়েছে । ব্যকলিংক এর দিক থেকে প্রায় ৬০% নামী দামী পত্রিকা থেকে লিংক পেয়েছে। কিছু এডাল্ট ব্যকলিংক ও আছে কেউ একজন নেগেটিভ এসইও করার কারনে । ভিজিটর ১২০০০ থেকে ডেইলি ১৮০০০ এ উন্নত হইছে ।

৭. ৬ নং এর মত সেম নিশে সেম টপিকে আর একটি সাইট । ব্যকলিংক নেই । কিছু এলোমেলো ব্যকলিংক কোথা থেকে জানি যুক্ত হয়েছে। সে গুলা আবার খুব বেশি ভাইটাল রোল প্লে করার মত না। ভিজিটর বেড়েছে । সাইটের বয়স ৩ বছর

৮. ইমেজ ভিত্তিক সাইট । কন্টেন্ট টোটালি নাই । সব ইমেজে ভরপুর । অনেকটা টেস্টিং সাইট ছিল । মান্থলি ২০-৫০ ডলার ইঙ্কাম দিত। এখন সেটার ভিজিটর প্রায় শুন্যের কোটায় নেমে এসেছে । ৭০-৮০% ডাউন হইছে । মেক্সিমাম ভিজিটর ছিল ইউ এস কেন্দ্রিক

৯. টপ ১০ ভিত্তিক সাইট । মোটামুটি ভিজিটর ছিল ১৭-১৮ কে ডেইলি। বেশ কিছু অটো ব্যকলিংক পেয়েছে। যে গুলা বেশ কোয়ালিটি ফুল। ইয়াহু নিউজ ও ফিচার হয়েছে বেশ কয়েকবার । 

সাইটের পোষ্ট লিংক বিভিন্ন ইন্টারন্যাশনাল ভেরিফাইড পেজে প্রায়ই শেয়ার হত । মানে প্রচুর সোশ্যাল সিগন্যাল আছে । সাইটের শক্তিও ছিল এইটাই । ভিজিটর ৫-১০% রাইজ করছে ।

১০. সাইটের বয়স ২ মাস । ডেইলি ১০০০ খানেক ইম্প্রেশন পাইত । কোন ব্যকলিংক নাই । নিউবিদের দিয়ে পরিচালিত । কন্টেন্ট কোয়ালিটি অন এভারেজ কিছু ক্ষেত্রে এভারেজের চেয়েও কম । এখন সেখানে ইম্প্রেশনের পরিমান ৫০০ এর মত ।

১১. বড় আকারের সাইট । প্রায় ৩০০০ পোষ্ট আছে । এই সাইটটাতে বেশ কিছু অদ্ভুত ঘটনা ঘটছে ।৬ তারিখে ভিজিটর ৫০-৬০% বেড়ে যায় কোন কারন ছাড়াই । ৭ তারিখে আবার নরমাল মানে ৫ তারিখের মত । আজকে ভিজিটর আবার অনেকটাই কম প্রায় ১০-২০%

১২. সেম বড় আকারের সাইট। ১২৫০+ পোষ্ট। আপডেটের আগে হুট করে ভিজিটর ডাবল হয়ে যায় । এরপর আবার কমা শুরু করে । অল্মোষ্ট ৩০-৪০% কমেছে ।


১৩. মিডিয়াম লেভেলের সাইট । বাংলাদেশ ভিত্তিক । পোষ্ট সংখ্যা ২০০+ এর। ভিজিটর ৬০% ডাউন । কন্টেন্ট কোয়ালিটি বেশ উন্তত। ব্যকলিংক নাই বললেই চলে।

এখনো কোন সিদ্ধান্তে আসতে পারি নি । কি ঘটনা ঘটতেছে তার। এনালাইটিক্সে প্রায় ২৯ টা সাইট আছে । বাকি গুলা লেখার ধৈরর্য্য হল না। সব মিলে । ১০ টার মত সাইটে অপরিবর্তিত অবস্থা । 

বাকিগুলা হয় বেড়েছে বা কমেছে । কমার সংখ্যাটাই বেশি ।
রাতে আমার ম্যানেজারের সাথে আলোচনায় বসব । সে মুলত এইগুলা এনালাইজ করে তখন একটা সিদ্ধান্ত নিতে পারব ।

নোটঃ এখানে একটা সাইট ও আমার না । আমার কোন সাইট আমার এনালাইটিক্স এ নাই ।
Bangla SEO Analysis 2020
গুগল কোর আপডেটের আগে ছোট খাট অনেক বিষয় চেঞ্জ আনে। বলা চলে প্রতি সাপ্তাহে দু তিন্টা মাইনর চেঞ্জ আনে। 
.
এই মাইনর আপডেট গুলা যদি একজন প্রোগ্রামারের দৃষ্টিতে দেখা হয় তাহলে ভাগ করা যায় দুই ভাগে।
.
১। আগের কোর আপডেটের বাগ গুলা ফিক্সড করা
২। নতুন ফাংশনালিটি যুক্ত করা। 
.
আগের কোর আপডেটে বাগ থাকে বেশ কিছু। সেগুলা ফিক্সড করার কাজটাই গুগল প্রতিটি কোর আপডেটের পর পর ই করে। 
.
নিউ ফাংশনলাটি যোগ করার কাজ ও ফাকে ফাকে চলতে থাকে। এই যেমন এই কোর আপডেটের আগে হুট করে গুগল লোকাল নিউজ ও লোকাল সাইটের প্রাধান্য দেখানো শুরু করেছিল। ফলাফল হিসাবে এপ্রিলে লোকাল সাইট বা নির্দিষ্ট কান্ট্রি টার্গেটেড ওয়েব সাইটের ভিজিটর বেড়ে যায়। 
.
কোর আপডেটে আবার অনেকটাই ডাউন খেয়ে যায় অনের আগের অবস্থানে ফিরে আসে।। 
.
এই সব কথা বলার আসলে একটা উদ্দেশ্য আছে। আপনি যদি একটা কোর আপডেটের পর থেকে পরের কোর আপডেটের পরের বিষয় গুলা নিয়মিত নজর দারী করেন তাহলে খুব সহজেই আপনি ধরতে পারবেন পরের কোর আপডেট কি নিয়ে হচ্ছে।। সেখানে একজন প্রোগ্রামারের তথা সার্চ ইঞ্জিনিয়ারের মোটিভ কি হতে যাচ্ছে। 
.
আর একটা বিষয় এখানে সার্চ ইঞ্জিনিয়ারদের ইনফ্লুয়েন্স করে। সেটা হচ্ছে ওয়েব মাস্টারদের বিহ্যাব। জন মুলার মুলত ওয়েব মাস্টারদের ট্রেন্ড এনালাইজ করে। তিনি আসলে গুগলের চেঞ্জে ডিরেক্ট ভুমিকা রাখেন না। বাট ইন্ডিরেক্টলি তাদের প্রভাবিত করেন।
.
সার্চ ইঞ্জিনিয়ারদের তার এনালাইসিস কিছুটা প্রভাবিত করে। এইদিকে গুগল দুইটা বিষয়কে সব সময় গুরুত্ব দেয়। প্রথমত গুগলের এলগোরিদম যেন সহজে ওয়েব মাস্টাররা কোন সুত্র বা নিয়মের ভিতর ফেলাতে না পারে। এইটা সব সময় গোপনীয় রাখে। আর দ্বিতীয়ত, গুগল নিজের ব্যবসা টিকানোর জন্য কোয়ালিটির বিষয়ে সচেতন।
। 
যে কোন আপডেট বুঝার জন্য উপরের বিষয় গুলা হেল্প করবে । এসইও রাউন্ড টেবিল মোটামুটি আপডেট গুলা সব কাভার করে, এসইও টুলস গুলা সার্চের পরিবর্তন গুলাকে ধরতে হেল্প করবে। আর জন মুলার, সার্চ ইলিউশন, গ্যারি এরা যাদের টুইটারে ফলো করে ও সরাসরি যাদের সাথে রিলেটেড তারা ইনফ্লুয়েন্সার হিসাবে কাজ করে। আর ফোরাম গুলাতে আলোচনা গুলাতে নিয়মিত চোখ রাখলেই এলগোর বেশ কিছু চেঞ্জ ধরতে পারবেন।
.
নিজের টিম মেটদের উদ্দেশ্যে লিখাটাই এখানে প্রকাশিত।



Bangla SEO Tutorial NEW 2020 Free


গুগল কোর আপডেট এর সমাধান ( নট কনফার্ম) 


গত কোর আপডেটে আমার দুইটা সাইট ডাউন ছিল । একটা এখনো ডাউন । আর এক্টার উপর টেস্টিং শুরু করি । কোন কাজের ফলাফল এ আমার সাইট আপ হয়েছে সেটা এখনো নিশ্চিত হতে পারি নি । তাই এইটাকেই ফাইনাল কিছু ধরে আগানোর চেয়ে নিজের বিবেচনাকে কাজে লাগানোর অনুরোধ রইল।
৫ তারিখ পর্যন্ত আমার ভিজিটর এভারেজ ৮০০০ এর অধিক ছিল। সেটা ৬ তারিখের পর থেকে ১০ তারিখ পর্যন্ত ক্রমাগত কমতে থাকে । আর ৬০০০ এ এসে থেমে যায় । এখানে একটা কথা বলার দরকার মনে করছি, আমার কোন সাইট আগে সরাসরি ডাউন হয় নাই । তাই এই বিষয়ে অভিজ্ঞতা কম । এখন সাইটকে আপ করার জন্য আমি কি করেছি তার একটা তালিকা দিচ্ছি । সাথে কেন করেছি বা আমার কেন মনে হয়েছিল করা দরকার সেটাও এখানে উল্লেখ করে দিচ্ছি । বর্তমান ডেইলি ভিজিটর ১০০০০ এর অধিক
১. প্রথম কাজ করেছি সব গুলার পোষ্ট আপডেট ডেট চেঞ্জ করেছি । সবমিলে ৯৫ টার মত পোষ্ট। তাই ম্যানুয়ালি করতে সময় লাগে তাই একটা প্লাগিন ইউজ করেছি । (https://wordpress.org/plugins/bulk-post-update-date/ )
২. টাইটেল গুলা মেক্সিমাম এডিট করেছি যেগুলা প্রথম পেজে আছে তাদের অনুকরনে । মেটা ডিস্ক্রিপশন ও এডিট করেছি।
৩. সাইটের ডিজাইন বা ইউ আই এর ফুল চেঞ্জ আনছি। থিম একই আছে বাট কালার কন্ট্রাস্ট , পাশে সাইডবার এইগুলা সব চেঞ্জ করেছি।
৪. ১৩/১৪ টা পোষ্ট এডিট করেছি যেগুলা আগে সব চেয়ে বেশি ভিজিটর দিত সেগুলা। এডিটিং এর ক্ষেত্রে নতুন করে কিছু এল এস আই যুক্ত করেছি এক্সট্রা কিছু লাইন দিয়ে । কিছু ক্ষেত্রে ডেন্সিটি বেড়ে যাওয়ায় ডেন্সিটি কমিয়ে ফেলেছি।
৫. আগে আর্টিকেল স্কীমা ছিল না এই সাইটে ( ডাউন হওয়া দুইটা সাইটের এক্টাতেও আর্টিকেল স্কীমা নাই ) , এইটাতে এড করেছি । এবাউট আস পেজকেও স্কীমার লোকাল স্কীমার অন্তভুর্ক করেছি।
৬. Wp Rocket মাঝে একবার ঝামেলা করছিল এইটা রিমুভ করেছি । সেখানে লাইট স্পীড ক্যাশে ইউজ করেছি । স্পীড মোটামোটি সেম আছে ।
৭. ইমেজ গুলাকে Webp ফর্মেটে কনভার্ট করেছি । কনভার্ট করার জন্য লাইট স্পীড ক্যাশের ইমেজ অপটিমাইজেশন অপশন্টা ব্যবহার করেছি
৮. আগে ক্যাটাগরি সংখ্যা ১০ এর অধিক ছিল সেটা কমিয়ে ফেলেছি। ৫ টির মত ক্যাটাগরি ইউজ করেছি।
৯. রিলেটেড পোষ্টের সংখ্যা আগে ৩ টি ছিল। যেটা শুধু টেক্সট আকারে আসত । সেটাকে ইমেজ সহ ৬ টি করেছি ।
১০. ফার্স্ট ফোল্ডে আমার সব সাইটেই ফিচার্ড ইমেজ ডান পাশে ছোট করে ২৫০*২৫০ সাইজের দেখাতাম । এখন দেখানোই অফ করে দিসি।
১১. রিলেটেড সাইডবারে শুধু মাত্র রিলেটেড পোষ্ট ছাড়া অন্য কিছুই রাখি নি ।
১২. হোম পেজ কে পুরো আমুল চেঞ্জ করে ফেলেছি। সেখানে প্রতিটা ক্যাটাগরির ৩ টা করে পোষ্ট আছে এখন । আগে লেটেস্ট ১০ টা পোষ্ট ছিল। তখন সব ক্যাটাগরির ছিল না ।
১৩. ফন্ট হিসাবে গুগলের ফন্ট ইউজ করতাম সেটা এখন লোকালি হোষ্ট করেছি । অনেকটা স্পীড অপটিমাইজেশনের জন্য বলা যায় ।
১৪. সাইটঃ দিয়ে সার্চ দেওয়ার পর খেয়াল করেছি পেজিনেশন গুলা ইন্ডেক্স হয়েছিল । যেটা আগে খেয়াল করি নি আর ইন্ডেক্সিং অফ করাতে ভুলে গেছিলাম । এখন সেটার ইন্ডেক্সিং অফ কিন্তু ফলো করে রেখেছি। গুগল Rel=Next and Previous এই অপশন্টা বাদ দিয়েছিল অনেক আগে । কি মনে করে যেন সেটা এপ্লাই করেছি। যদিও গুগলের তথ্য মতে এইটা কাজ করে না ।
১৫. ২ টা পোষ্ট প্রায় সিমিলার কিওয়ার্ডে রেংক করে ছিল । সেই দুইটাকে একটা করে ফেলেছি। আর ৪/৫ টা পোষ্টে জন্মের পর থেকে মানে সাইটের জন্মের পর থেকে ভিজিটর পাই নি এনালাইটিক্স অনুসারে। ডিলিট করে দিয়েছি
১৬. সাইট ম্যাপ একদিন রিমুভ করে দিয়েছিলাম নিজের ভুলে । পরের দিন এড করেছি আবার । তবে এইটা একধরনের কাজ দিতে পারে আপনাদের রিমুভ করার দরকার নাই । যেটা করতে পারেন পিং করতে পারেন । https://www.google.com/ping… এইভাবে ।
১৭. একটা সাইট আমার আর্টিকেল কপি করেছে । সেখানে আমার ইন্টারলিংক সহ ছিল । সে ইন্টারলিংক সহ কপি করে বসাই দিসে। রিপোর্ট বা কিছুই করি নি । ওইটা ওইভাবেই আছে । রেংকিং এও নাই ।
এরপর প্রতিদিন এনালাইটিক্স দেখেছি । এর বাইরে একটা কাজ ও করি নি । কি কারনে ডাউন হয়েছিল আর কি কারনে আপ হচ্ছে সেটা নিজেও বুঝতে পারি নি ।
Bangla SEO Analysis | Google core Update May 2020 | Website Page Visitors Bangla Analysis Bangla SEO Analysis | Google core Update May 2020 | Website Page Visitors Bangla Analysis Reviewed by Dr.Mira Hasan on May 08, 2020 Rating: 5
Powered by Blogger.